তৌসিফ মাহবুব ও তানজিন তিশা এর ৬ টি নাটক হিট (Bangla Natok Tausif Mahbub and Tanjin Tisha)

 তৌসিফ মাহবুব ও তানজিন তিশা এখন পর্যন্ত জুটি হয়ে  ৪৬ টি নাটক করেছেন। বেশ সফল এই জুটি দিয়েছেন যেমন মানসম্মত ও প্রশংসিত কাজ তেমন দুজনের বোঝাপড়াটাও সুন্দর। ভালো ভালো গল্পে নিজেদের সুন্দর উপস্থাপন করেছেন।  প্রথমবার আলোচিত নির্মাতা সঞ্জয় সমদ্দারের  সাথে আসছে এই জুটির "চলতি পথে"। তৌসিফ মাহবুব ও তানজিন তিশার নাটকের পথচলা প্রায় একই সময়ে শুরু দুজনকে প্রথম দেখা যায় রেদোয়ান রনির "ইউটার্ন" নাটকে। অনেক ভালো ভালো নির্মাতার ভালো কাজ দিয়ে হয়েছেন আলোচিত।  এক নজরে কিছু কাজ।     



🎬এই শহরে কেউ নেই ( শিহাব শাহীন)  


গ্রাম থেকে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় পড়ার স্বপ্ন নিয়ে ঢাকা আসে মেয়েটি। ঢাকা এসেই এক দূর্ঘটনায় পরিচয় হয় রেস্টুরেন্ট এ কাজ করা এক ছেলের সাথে।  জুটি হিসেবে শিহাবের সাথে  মোট ৩ টি কাজ করেছেন। এর মধ্যে এই কাজটি সবচেয়ে ভালো লেগেছে।দুজনে চমৎকার অভিনয় করেছেন।  


🎬মনজুড়ে ( রাহাত মাহমুদ)


গ্রামে বাস করা এক মেয়ে স্বপ্ন দেখে নায়িকা হবার মেয়েটির বাড়ীতে আশ্রিত থাকা ছেলেটি  স্বপ্ন দেখায় তার স্বপ্ন পূরণের সঙ্গী হবার।  গ্রামের কালচারে পারফেক্ট একটি রোমান্টিক ট্রাজেডি নাটক। রাহাত মাহমুদের সাথে এই জুটির কেবল একটি কাজই হয়েছে এবং কাজটি দর্শকনন্দিত হয়েছে। গ্রামের চরিত্রে দুজনের কেমিস্ট্রি যেমন সুন্দর ছিলো তেমন ছিলো দারুণ অভিনয়। এছাড়া শিশু শিল্পী দুজনেও নজর কেড়েছে। 

 

🎬অনাদার লাভ স্টোরি ( ভিকি জাহেদ) 


ভালোবেসে বিয়ে করেন নবদম্পতি।কিন্তু একদিন স্ত্রী ভয়ংকর এক রোগে আক্রান্ত হয়।  ভালোবাসা সম্পর্ক সংসার  এমনই এক মায়া শত কষ্ট হলেও  কেউ কাউকে ছাড়তে পারে না। স্ত্রীর  এরকম পরিস্থিতিতে সমাজের খুব কমভাগ স্বামীই পাশে। যেমন অসাধারণ গল্প তেমন ছিলো অভিনয়। দুজনই সুন্দর অভিনয় করছে। শেষের দিকে মানসিক অস্থিরতায় ভোগা  তিশার অভিনয় মন ছুয়ে গিয়েছিলো।  ভিকির সাথে এই জুটির ৩ টি কাজ হয়েছে। ৩ টি কাজই চমৎকার ছিলো।  এছাড়া গত ঈদে চোখ নাটকেও দারুন অভিনয় ছিলো গল্পও বেশ চমৎকার ছিলো। 


🎬সিগন্যাল ( রাফাত মজুমদার রিংকু)


একজন ট্রাফিক পুলিশের দায়িত্ব অপরদিকে পরিবারের ক্রাইসিস। রিংকুর সাথে এই জুটি র ৪টি কাজ হয়েছে ৪ টি চার রকম গল্পে নির্মিত।  সবগুলোই ভালো লেগেছে যার কারণে কোনটাকে যে এগিয়ে রাখবো ভেবে পাই না তবে এই নাটকে দুজনের সাবলীল অভিনয় বেশি নজর কেড়েছে সাথে দিয়েছে একটি ম্যাসেজও।  এছাড়া গত ঈদে সাইলেন্স, পালকিও  বেশ সুন্দর সামাজিক গল্প ছিলো। অচেনা প্রেম নাটকে বিনোদিত করেছেন।  

 

🎬ছাত্র ( মাবরুর রশিদ বান্নাহ)


বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরীক্ষার জন্য কোচিং করে একদল ছেলেমেয়ে।  সেখানে পরিচয় হয় এক দরিদ্র ছেলেটির সাথে মেয়েটির।  এই জুটির আমার অন্যতম প্রিয় একটি নাটক এটি। বান্নার সাথে বেশকিছু নাটক হয়েছে এই জুটির তার মধ্যে এটি বেশি ভালো লেগেছে। গল্প অভিনয় ছিলো বেশ ভালো। 

  

🎬এই অবেলা ( মোহাম্মদ মিফতাহ আনান)


কোন এক বৃষ্টিভেজা বাদলা দিনে  পরিচয় হয় দুজনের।  রোমান্টিক ট্রাজেডি ধরণের একটি নাটক।  আনানের সাথে প্রথম কাজই গত ভালোবাসা দিবসে বেশ প্রশংসিত ও আলোচিত হয় নাটকটি।  নাটকটিতে যেমন বৃষ্টির দৃশ্যগুলো নজর কেড়েছে তেমন কবিতা।  শেষটা ইমোশনাল।  প্রেম মানেই পাগলামি পাগলামির শোলোকনাই ছিলো।  


 🎬অপরাজিতা ( তুহিন হোসেন)


 গ্রামে একটি আর্মি ক্যাম্পে একটি অপারেশনকে কেন্দ্র  করে গল্পটি।  এই জুটিকে তেমন একটি  বিজয় দিবসের নাটকে দেখা যায় নি।  স্বাধীনতার ৫০ বছর উপলক্ষে নির্মাতা তুহিন তাদের নিয়ে সুন্দর একটি কাজ নির্মাণ করেছেন এবং তুহিনের সাথে এটিই তাদের একমাত্র নাটক।

Close